বিশ্বের সবচেয়ে বড় ফেসবুক আর্মি

ভেবেই ভাল্লাগছে। বিশ্বের সবচেয়ে বড় ফেসবুক আর্মি আমাদের। অটোম্যাটিক লাইক ওয়েপনে সুসজ্জিত, যেকোনো একটা ঘটনায় সবার আগে মাঠে নেমে প্রতিপক্ষকে ছিন্নভিন্ন করে দেয় আমাদের ঢাকার ফেসবুক আর্মি। কারো জীবনের কোনাকাঞ্চিতে কোনো ঘটনা? খুঁজে বের করে দেবে আমাদের ফেসবুক আর্মির গোয়েন্দাদল। ঘটনা ঘটুক বা না ঘটুক, তা নিয়ে আলোচনায় মুখরিত হবে আমাদের ফেসবুক জনসাধারণ।

প্রাইমারি স্কুলের আদরের সন্তানদের হাতে বাবামায়েরা তুলে দিয়েছে আইফোন, ফেসবুক। এটুকু বাচ্চারাও এখন ফেসবুক রোমান্সে ভরপুর। বেবি রাইম লিখতে না পারলেও ছবিতে বাহারি ক্যাপশন দিয়ে লাইক কামিয়ে নেবে ঢাকাবাসী শিশুরা। লাইকের ব্যবসায় সয়লাব চারপাশ। এখানে ওখানে মস্তিষ্কে বুদ্ধিহীন নবপ্রজন্মের মাঝে মূল্যায়িত হবার উপায় ‘সেলিব্রিটি’ হওয়া। যেভাবেই হোক সেলিব্রেটি হতে হয় এই আর্মির সোলজারদের। ঘরে, টয়লেটে, বিছানায় বসে শুয়ে তৈরি হবে ভিডিও, লাইক হবে। কয়েক লক্ষ ফলোয়ার পেলে আর্মির সোলজার থেকে কমান্ডার হবে। এই মান-ইজ্জতের বৃদ্ধিতে বিগলিত হবে আমাদের ফেসবুক পিপলজ।

কোথাও কোনো অন্যায়? আমাদের ঢাকাবাসী ফেসবুকাররা তা নিয়ে অবশ্যই লেখা দিবে, ট্রল করবে। কাল রাতে ধানমন্ডিতে কেউ অ্যাক্সিডেন্ট করে মরেই গেছে? তো কী? অপেক্ষা করুন, মানুষটা কেমন করে মরলো, আগামীতেও ওখানে কেউ মরবে কিনা তা নিয়ে আসবে আপডেট, কেউ না কেউ সচিত্র ভিডিও ছেড়ে দিবে ফেসবুকেই। বাস্তব পৃথিবীর মানুষের যতই কষ্ট থাকুক, ফ্রাইড চিকেনে গিয়ে হাই রেজ্যুলেশন ফটো আর সেলফি আপনাদের কাছ থেকে শত শত লাইক কামিয়ে নিবে। রোডসাইড কফিশপে গেলে দেখবেন নানান কিসিমের, নানান বয়সের ছেলেমেয়েরা সেলফিতে বিভোর। ফেসবুকে প্রশ্ন পাওয়া যায়। তা দিয়ে গিপিএ-ফাইভ পাওয়া যায়। তাই অত পড়ে কী হবে? আছে ফেসবুক।

ঢাকাবাসী কতটা মানবেতর জীবনযাপন করে, তা আমার বাসার দীর্ঘদিনের পানির লাইনের দুর্গন্ধ এবং অদূরবর্তী বিশাল মেইন রোডে বছরের পর বছর কেটে ফেলে রেখে পানি জমে থাকার দৃশ্যেই অনুমেয়। বিভিন্ন অফিসে যারা কোনো কাগজ পাশ করাতে অপেক্ষা করে,তারা জানে এত ভালো মানুষ দেশে! এত ‘ফেইথ ইন হিউম্যানিটি রিস্টোর্ড’ টাইপের অনুভূতি তাদের হয় প্রতিদিন!

পহেলা বৈশাখের এত কিউট দিনে মিষ্টি মিষ্টি ‘মঙ্গল কামনা’ না করে এই বিশ্বের ২য় সর্বোচ্চ ফেসবুক আর্মিওয়ালা ঢাকার গুণকীর্তন না করায় আমার কয়টা লাইক হবে ফ্রান্স? নাকি এটাও উপেক্ষিত হবে? 😀

এই লেখার অনুপ্রেরণা যে খবরে, সেই লিঙ্কটি- http://www.dhakatribune.com/bangladesh/dhaka/2017/04/14/dhaka-ranks-second-world-active-facebook-users/

১৪/০৪/১৭

Advertisements

About mahmud faisal

Yet another ephemeral human being...
This entry was posted in দেশ. Bookmark the permalink.

মন্তব্য করুন

Please log in using one of these methods to post your comment:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / পরিবর্তন )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / পরিবর্তন )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / পরিবর্তন )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / পরিবর্তন )

Connecting to %s