গহন মাঝে

– দেখেছ তুমি বদলে যাওয়া? এইতো চারপাশের দৃশ্যপটগুলোর কথাই ধরো… সন্ধ্যায় আগে ওই কদমগাছটায় কিছু পাখি বসতো। এখন গাছটাই নেই, নতুন ফ্ল্যাট তোলার সময় কেটে ফেলেছে গোড়া থেকে। সেই গাছে যেখানে পাখি ডাকতো, ঠিক সেখানটায় এখন ফ্ল্যাটের একটা রুম। হয়ত সেই জায়গাগুলোতে একটা বিছানা পেতে কেউ মোবাইলে পাখির ডাক শোনে…

– বড্ড বেশি বকছো তুমি। পরিবর্তনই তো নিয়ম। তোমার বন্ধুরাও কি বদলে যায়নি? তোমার মনে নেই রকি কত চঞ্চল ছেলে ছিলো। এখন কি সে কয়েকশ লোককে চালায় না? কী রাশভারি গম্ভীর।

– তা ঠিক। এই ঠিক ১০টা বছরেই তো অজস্র পরিবর্তন। তুমি কি মনে করো হৃদয়ও বদলে যায়?

– যায় তো। আমিও তো বদলে গেছি অনেক। ভাবিনি কখনো যে আমি এমনটা হয় যাবো। একসময় তো ভাবতেও অবিশ্বাস হতো যে আমি এমন হবো, হতে পারবো! বদলে যায় বলেই তো মানুষ। বদলে যাওয়াই এই সৃষ্টিজগতের একমাত্র স্থির নিয়ম। আর সবই বদলায়।

– মানুষ খুব ভুলেও যায়, তাইনা?

– যায় বৈকি! মানুষ ভুলতে পারে বলেই বেঁচে থাকতে পারে। নইলে ভীষণ হৃদয় ধ্বংস করা বেদনাদের বয়ে নিয়ে বেড়াতে হতো আমৃত্যু। পারতো মানুষগুলো? ভুলে যায় বলেই আবার নতুন করে গড়তে পারে, স্বপ্ন দেখতে পারে। বিশাল বিশাল ক্ষতগুলো আবার সেরে ওঠে। ভাবা যায়?

– হুমম। অত ভেবে কী হয় বলো? বুঝো নি জীবনটা? এখানে সবটুকু নগদ। তুমি যখন খারাপ থাকবে, একটা মানুষও তোমায় চেয়ে দেখবে না। কেউ তোমার ভার নিতে আসবে না। ওটা আশা করিয়ো না। বরং ভালো থাকার সময়টুকুতে নিজের আনন্দ অন্যের সাথে ভাগাভাগি করিয়ো, তাতে অন্যদের জন্য কিছু করা হবে। খারাপ থাকার সময়টাকে ভুলে থেকো। ওটা মনে রেখে লাভ নেই। যা কিছু খারাপ, তা কিছু আঁকড়ে ধরে কোনো লাভ নেই। একদম নাহ।

– বুঝি, তবু মন মানে না। নিজেকে ভুলতে সবাই পারে না। এটা তো শিখতে হয়, নিজেকে ছেড়ে অন্যদের মাঝে ছড়িয়ে থাকতে হয়। এই পদ্ধতিটাই কেমন যেন বুঝতে পারা যায় না সহজে।

– হুমম। অনেক কিছুই স্পষ্ট হওয়া যায় না। তখন হৃদয়কে বুঝতে হয়। নিজের হৃদয়কে।

About mahmud faisal

Yet another ephemeral human being...
This entry was posted in ব্লগর ব্লগর. Bookmark the permalink.

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / পরিবর্তন )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / পরিবর্তন )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / পরিবর্তন )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / পরিবর্তন )

Connecting to %s